অর্থনৈতিক ডেস্ক:: ইলিশের জিআই স্বত্বের (জিওগ্রাফিক্যাল ইনডিকেশন) সনদ মৎস্য অধিদফতরের কাছে আনুষ্ঠানিকভাবে হস্তান্তর করা হয়েছে। শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু ইলিশের এই সনদ তুলে দেন মৎস্য অধিদফতরের মহাপরিচালক সৈয়দ আরিফ আজাদের হাতে।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর সিরডাপ মিলনায়তনে এ সনদ হস্তান্তর করা হয়।

আন্তর্জাতিক মেধাস্বত্ব-বিষয়ক সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল প্রোপার্টি রাইটস অর্গানাইজেশনের (ডব্লিউআইপিও) নিয়ম মেনে ইলিশের নিবন্ধন করা হয়েছে।

জিআই সনদ হস্তান্তর প্রসঙ্গে শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু বলেন, এই সনদ পাওয়ার কারণে বাংলাদেশের ইলিশের রফতানি বাড়বে। এতে বৈদেশিক মুদ্রার পরিমাণ বাড়বে।

এর আগে ব্যাপক চাহিদা থাকায় ২০১৬ সালের ১৩ নভেম্বর আন্তর্জাতিকভাবে ইলিশের একক মালিকানা পাওয়ার লক্ষ্যে আনুষ্ঠানিকভাবে জিআই নিবন্ধনের আবেদন করে মৎস্য অধিদফতর।

উল্লেখ্য, আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি পাওয়ার পর বাংলাদেশকে ইলিশ বিপণনের ক্ষেত্রে স্বত্ব দেওয়ায় বর্তমানের তুলনায় ২০ থেকে ২৫ শতাংশ বেশি দাম পাবেন জেলেরা।

ইলিশের জিআই সনদ হস্তান্তর অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নারায়ণ চন্দ্র চন্দ, শিল্প মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব সুশেণ চন্দ্র দাস, মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ সচিব মো. মাকসুদুল হাসান খান ও ডিপিডিটির নিবন্ধক মো. সানোয়র হোসেন প্রমুখ।