স্পোর্টস ডেস্ক:: ঢাকা পর্বে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমেছিল খুলনা টাইটানস। শুরুটা ভালো মতো হয়নি। প্রথম ওভারেই সানজামুলের বলে মেরে খেলেছিলেন চ্যাডউইক। কিন্তু মিড উইকেটে আগেই দাঁড়িয়ে থাকা সৌম্য সরকারের হাতে তালুবন্দী হয়ে ফিরে যান এই তারকা। একটি চারে ওয়ালটন বিদায় নেন ৫ রানে।

এরপর তৃতীয় ওভারেও ব্যর্থতা ধরা দেয় খুলনার ব্যাটিং লাইন আপে। আবারও আঘাত হানেন সানজামুল। ২.৩ ওভারে এলবিডাব্লিউ হয়ে ফেরেন ক্লিংগার। তিনি ফেরেন ২ রানে। এর মাঝে অপরপ্রান্ত আগলে রেখে থিতু হওয়ার চেষ্টায় ছিলেন ওপেনার নাজমুল হোসেন শান্ত। ৯ রানে ব্যাট করতে থাকা এই তারকাকেও থিতু হতে দেননি শ্রীলঙ্কার দিলশান মুনাবিরা। একেবারে বোল্ড হয়ে ফেরেন সাজঘরে। খুলনার সংগ্রহ ৫ ওভারে ৩ উইকেটে ৩১ রান। ব্যাট করছেন রাইলি রোসো (১০) ও মাহমুদউল্লাহ (০)।

সিলেটে বিপিএলের প্রথম পর্বে দুই ম্যাচে একটি জয় পেয়েছে খুলনা টাইটানস। গতবার চমক দেখানো দলটির দ্বিতীয় পর্বের লড়াই শুরু হলো আজকের ম্যাচ দিয়ে। মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে খুলনার প্রতিপক্ষ চিটাগং ভাইকিংস। টসে জিতে শুরুতে খুলনা টাইটানসকে ব্যাংটিয়ে পাঠায় চিটাগং। আজকের ম্যাজে দুই দলই অপরিবর্তিত একাদশ নিয়ে মাঠে নেমেছে।

খুলনা টাইটানস: নাজমুল হোসেন শান্ত, চ্যাডউইক ওয়ালটন, মাইকেল কিংগার, রাইলি রোসো, মাহমুদউল্লাহ (অধিনায়ক), কার্লোস ব্র্যাথওয়েট, জোফরা আর্চার, আরিফুল হক, মোশাররফ হোসেন, শফিউল ইসলাম ও আবু জায়েদ।

চিটাগং ভাইকিংস: লুক রনকি, সৌম্য সরকার, দিলশান মুনাবিরা, মিসবাহ উল হক (অধিনায়ক), লুইস রিস, এনামুল হক, সিকান্দার রাজা, তানবীর হায়দার, সানজামুল ইসলাম, শুভাশিষ রায় ও তাসকিন আহমেদ।