ই-কণ্ঠ ডেস্ক রিপোর্ট:: সাধারণ একজন রোগীর মতোই পাঁচ টাকার টিকিট কেটে হাসপাতালে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শনিবার সকালে প্রধানমন্ত্রী গাজীপুরের কাশিমপুরে শেখ ফজিলাতুন্নেসা মুজিব মেমোরিয়াল কেপিজে হাসপাতালে নিজে কাউন্টারে দাঁড়িয়ে নাম নিবন্ধন করেন এবং টিকিট কাটেন। পরে সেই টিকিটে তিনি তার স্বাস্থ্য পরীক্ষা করান। এসময় তার সঙ্গে ছিলেন ছোটবোন শেখ রেহানাও।

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, শনিবার সকাল ৮টায় প্রধানমন্ত্রী ও তার বোন শেখ রেহানা তাদের মায়ের নামে প্রতিষ্ঠিত এই হাসপাতালে এসে পৌঁছান। এরপর প্রধানমন্ত্রী নিজেই হাসপাতালের কাউন্টারে গিয়ে নিবন্ধন করেন এবং চেকআপের ফি দেন। পরে হাসপাতালে তাদের চোখ, কানসহ নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়। এরপর সকাল সাড়ে ৯টার দিকে প্রধানমন্ত্রী হাসপাতালের কনসালটেন্টদের সঙ্গে আলোচনায় বসেন।

হাসপাতালটি উদ্বোধনের দিন মায়ের নামে প্রতিষ্ঠিত এ হাসপাতালটির চিকিৎসাসেবায় সন্তুষ্টি প্রকাশ করে শেখ হাসিনা বলেছিলেন, আমি যদি কখনো অসুস্থ হয়ে পড়ি, তাহলে আপনারা আমাকে বিদেশে নেবেন না। এয়ার অ্যাম্বুল্যান্সে উঠাবেন না। আমি দেশের মাটিতেই চিকিৎসা নেব। এই হাসপাতালে চিকিৎসা নেব।

২০১৩ সালের ১৮ নভেম্বর শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব মেমোরিয়াল কেপিজে হাসপাতালের যাত্রা শুরু হয়। বেগম ফজিলাতুন্নেসা মুজিব বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্ত্রী এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মা।