নিজেস্ব প্রতিবেদক॥ এখন থেকে চিকিৎসক ছাড়াই জানা যাবে নিজের হার্টের অবস্থা। বুকের ব্যাথা অনুভবের সঙ্গে সঙ্গে দৌঁড়াতে হবে না চিকিৎসকের কাছে। নিজের হার্টের ইসিজি নিজেই করা যাবে। সম্প্রতি ‘রিয়েল টাইম ইসিজি’ নামের একটি ডিভাইস আবিস্কার করে চিকিৎসা বিজ্ঞানে নতুনত্ব এনে দিয়েছেন যুক্তরাজ্যের ক্যামব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলাদেশী বংশোদ্ভূত কার্ডিওলজিস্ট ড. রামিন শাকুর।

এই ডিভাইজটি দিয়ে চিকিৎসক ছাড়াই যে কোন মানুষ তার হার্ট পরীক্ষা করতে পারবে তাদের মোবাইল আপস ব্যবহার করে। ফলে পৃথিবীর যে কোন স্থান থেকে রোগীরা সরাসরি চিকিৎসকের সাথে যোগাযোগ করে মাল্টিপল ইসিজি ডিভাইজের মাধ্যমে সেবা নিতে পারবেন।

এ ব্যাপারে ড. রামিন শাকুর বলেন, ‘রিয়েল টাইম ইসিজি’ নামের এই ডিভাইজটি পৃথিবীর প্রথম ম্যাল্টিপল ইসিজি এবং অক্সিজেন টেম্পারেচার ও জিপিএস সিষ্টেমে তৈরি করা হয়েছে। ডিভাইজটি দিনে ১৪ থেকে ১৫ জন মানুষ ব্যবহার করতে পারেন। মূলত ওয়ার্লেস চার্জিং হওয়ায় এটাতে কোন ধরণের তার লাগে না চার্জ করতে। প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে শুরু করে দেশ-বিদেশের যে কোন স্থান থেকে অনলাইনের মাধ্যমে এই ডিভাইজ দিয়ে হার্টের চিকিৎসা করা যায় বলে জানান ড. রামিন শাকুর।

এই নতুন আবিস্কারের ফলে রামিন শাকুর মূলধারার পাশাপাশি বাংলাদেশি গণমাধ্যমের শিরোনাম হয়েছেন। তার প্রতিভা বিকাশের খবর ছড়িয়ে পড়েছে বিশ্বজুড়ে। বর্তমানে আফ্রিকার বেশ কয়েকটি দেশে এই প্রযুক্তিটি রীতিমত অবাক করেছে চিকিৎসকদের। সম্প্রতি যুক্তরাজ্যের পেষ্টন শহরের সেন্ট মেরি‘স হেলথ সেন্টারে আয়োজিত এক সেমিনারে ‘রিয়েল টাইম ইসিজি’ এই ডিভাইজটি হৃদরোগের চিকিৎসায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে বলে উল্লেখ করেন সেমিনারে অংশগ্রহণকারীরা। এই ডিভাইসটি ব্যবহার করে প্রত্যেকেই যেন নিজেদের হৎপিন্ডের অবস্থা পরীক্ষা করতে পারেন সেজন্যেই এই ডিভাইসের আবিষ্কার করেন রামিন শাকুর।