আবদুল্লাহ আল মামুন, নারায়ণগঞ্জ:
পবত্রি মাহে রমযানকে সামনে রখেে লবেুর চাহদিা মটোতে অনকেটাই ব্যস্ত সময় পার করছনে লবেু চাষরিা। দশেরে প্রায় ৭০ ভাগ লবেুর চাহদিা মটোয় খাগরাছড়ি জলোর চাষরিা।
লবেু চাষদিরে সাথে কথা বলে জানা গেছে প্রতি বছরই খাগরাছড়ি জলো থকেে প্রচুর পরমিানে লবেু যায় রাজধানীর পাশরে জলো নারায়ণগঞ্জসহ দশেরে বভিন্নি জলোয়। উন্নত মানরে লবেু পাওয়া যায় অনকে কম দাম। তবে গতবাররে চয়েে এবারে ফলন ভাল হয়ছে।ে বক্রিওি অনকে ভাল। নয্যে দামও পাচ্ছে চাষরিা। লবেু চাষ করে খাগরাছড়ি জলোর কৃষকরে মুখে এখন হাসি ফুটছে। প্রতি হালি লবেু বক্রিি হচ্ছে ৮-১০ টাকা দাম।ে নন্মি মান বা ছোট লবেু বক্রিি হচ্ছে হালি প্রতি ৪-৫ টাকা দর।ে রাজধানীর পাশ্বর্বতী জলো নারায়ণগঞ্জে সইে লবেু বক্রিি হচ্ছে ২০-২৫ টাকা প্রতি হালি দর। উৎপাদক থকেে ২-৩ হাত বদল হয়ে লবেু যাচ্ছে বভিন্নি জলোয়। আর হাত বদলরে মাধ্যমে লবেুর দামও বৃদ্ধি পাচ্ছ। দাম একটি বশেী হলওে ভাল মানরে লবেু পয়েে খুশি ক্রতোরা।
নারায়ণগঞ্জরে এক ব্যবসায়ী জানান, উন্নত মানরে লবেুর যোগান দচ্ছিে খাগরাছড়ি জলোর কৃষকরো। গতবাররে তুলনায় এবার লবেুর উৎপাদনও হয়ছেে বশেী। আগরে তুলনায় এবাররে রমযানে কম দামে লবেু ক্রয় করতে পারবনে নারায়ণগঞ্জরে ক্রতোরা।