বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধি:
ধর্মীয় ওরস উপলক্ষে ঈদুল ফিতরের ঈদে বাঘায় অনুষ্ঠিত মেলায় অশ্লিলতা, জুয়া ও র‌্যাফেল ড্র বন্ধের দাবি জানিয়ে রাজশাহী জেলা প্রশাসক বরাবর আবেদন করা হয়েছে। গনস্বাক্ষরিত আবেদনপত্রের অনুলিপী কপি রাজশাহী পুলিশ সুপার,উপজেলা নির্বাহি অফিসার,বাঘা থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ছাড়াও রাজশাহী প্রেস ক্লাব ও বাঘা প্রেস ক্লাব বরাবর পাঠানো হয়েছে। এতে স্বাক্ষর করেছেন বাঘা পৌর আওয়ামীলেিগর সভাপতি আব্দুল কুদ্দুস,যুগ্ন সাধারন সম্পাদক আব্দুল আজিজ,সাংগনিক সম্পাদক তারিক আজিজ,ব্যবসায়ী আসাদুজ্জামান,সুরুজ আহমেদ,বাঘা ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ আব্দুল গোফুর মিঞা,রহমতুল্লাহ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধঅন শিক্ষক বাবুল ইসলাম,কলেজ ছাত্র শামীম হোসেন,এলিট সরকার,হাসান আল মাহমুদ,আবিদ হাসান,রতন আলী,শাহরিয়ার শাওনসহ প্রায় ২’শজন।
আবেদন পত্রে বলা হয়েছে,গত বছরের আগে বিনোদনের জন্য বাঘা মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের খেলার মাঠ ইজারা নিয়ে সেখানে সার্কাস, প্যান্ডেলে চলে যাত্রার নামে অশ্লিলতা। পুতুল নাচের নামে চলে নগ্ন নৃত্য। র‌্যাফেল ড্র ও লটারির নামে চালানো হয় জুয়ার আসর। এছাড়াও বাঘা ওয়াকফ এষ্টেটের ইজারা নেওয়া মাঠের আশে পাশেও চলে লটারি ও জুয়া। এসব খেলায় মেতে উঠে নগদ টাকা ছাড়াও অস্থাবর জিনিসপত্র বিক্রি করে সর্বশান্ত হয় মানুষ। সংসার ভাঙার ঘটনাও ঘটেছে। বিপদগামী হয় স্কুল ও কলেজ পড়–য়া শিক্ষার্থীরা। রমজানের ছুটি শেষ হলেও শেষ হয়না বিনোদনের কার্যক্রম। নির্ধারিত ছুটি ছাড়াও অতিরিক্ত ছুটি কাটাতে হয় শিক্ষার্থীদের।
স্থানীয়দের সমালোচনার মুখে পড়ে,গত বছর বিদ্যালয়ের মাঠ ইজারা বন্ধ রাখেন বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। এবার অদৃশ্য শক্তির ইশারায় বিনোদনের জন্য ইজারা দেওয়া হয়েছে স্কুল মাঠ। এবার এ মাঠ ৮০ হাজার টাকায় ইজারা দিয়েছেন স্কুল কর্তৃপক্ষ। ইজারা নিয়েছেন মোস্তাক নামের একজন। শেষের দিকে সার্কাস-যাত্রা,পুতুলনাচ, মৃত্যু কুপ খেলা,কার ও মটরসাইকেলের প্যান্ডেলের কাজ। বিগত বছরগুলোর মতো এবারেও অনৈতিক কার্যকলাপ চলতে পারে বলে ধারনা এলাকাবাসির।
জানা যায়, আব্বাসীয় বংশের হযরত শাহ্ মোয়াজ্জেম ওরফে শাহদৌলা (রহঃ) ও তার ছেলে হযরত আব্দুল হামিদ দানিশমন্দ (রহঃ) ওফাৎ দিবসে ধর্মীয় ওরস মোবারক উৎসবকে ঘিরে সাধকদের সাধনার পীঠস্থান বাঘা ওয়াকফ এষ্টেটের বিশাল এলাকা জুড়ে প্রতি বছর ঈদুল ফিতরের ঈদে অনুষ্ঠিত হয় ঈদ মেলা। ধর্মীয় চেতনায় আঘাত হানতে পারে এমন কার্যকলাপের উপর ১০ টি শর্ত জুড়ে দিয়ে ঈদের দিন থেকে ২ সপ্তাহব্যাপি মেলা অনুষ্ঠানের জন্য ওয়াকফ এষ্টেটের মাঠ ইজারা দেন মাজার কর্তৃপক্ষ। (শর্তের তালিকায় রয়েছে,নগদ জমানত ছাড়াও ডাকের সমুদয় অর্থ নগদ প্রদান,আইনশৃঙ্খলা ও পরিস্কার পরিছন্নতা বজায় রাখাসহ অন্যান্য শর্তের মধ্যে রয়েছে, যাত্রা, নাচ,গান,পুতুল নাচ, জুয়াখেলা, লটারি, অশ্লিল সিডি, অসামাজিক কার্যক্রম,মেলায় আগত ব্যবসায়ীদের কাছে ১শত টাকা ফুট (দের্ঘ্য-প্রস্থের গড়) হিসাবে ও আসবাবপত্র ক্রেতাদের নিকট শতকরা ৫টাকার বেশি খাজনা আদায় না করা)। এবারেও ২০(বিশ) লক্ষ ১ হাজার টাকায় ইজারা দেওয়া হয়েছে ওয়াকফ এষ্টেটের মাঠ। ইজারা নিয়েছেন বাঘা পৌর আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মামুন হোসেন। গত বছরও ছাব্বিশ লক্ষ ষাট হাজার টাকায় মেলার জন্য এই মাঠ ইজারা নিয়েছিলেন মামুন হোসেন।
এ্যাডভেঅকেট আব্দুল হান্নান জানান. রাজশাহীর বাঘায় ঐতিহাসিক এ মেলার ঐতিহ্য প্রায় ৫’শ বছরের। মেলা উপলক্ষে ১৫ রমজান থেকেই বসতে শুরু করেছে রকমারি পণ্যর দোকান। ঈদের দিন থেকে ২সপ্তাহের অনুমতি পাওয়া মেলা চলে প্রায় মাসব্যাপি। শিক্ষার্থী অভিভাবক আব্দুর রাজ্জাক বলেন, অধিক সময় ধরে চালানো হয় সার্কাস ও পুতুল নাচের নামে অশ্লিল নৃত্য।
বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক আবু জাফর জানান, খেলাধুলাসহ জাতীয় প্রায় প্রোগামগুলো এ মাঠেই হয়ে থাকে। এই মাঠের মাটি কাটা গর্তগুলো পরে ভরাট করলেও আগের মতো আর হয়না। এর ফলে ঐতিহ্য হারাচ্ছে উপজেলার প্রান কেদ্রের একমাত্র খেলার মাঠটি। এনিয়ে তার ফেসবুক আইডিতে ট্যাটাসও দিয়েছেন তিনি। শিক্ষার্থী ডলার বলেন, মাঠ ইজারা দেওয়ার কারণে রমজানের ছুটির পরও ভোগান্তিতে পড়তে হয়। এছাড়াও সার্কাসের লোকজনের দখলে চলে যায় ক্লাশরুম। বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ আলী দেওয়ান মাঠ ইজারা দেওয়ার সত্যতা স্বিকার করে বলেন,স্কুলের টাকার প্রয়োজন ছাড়াও নের্তৃস্থানীয়দের আবদার মেটাতে বাধ্য হয়ে একাজ করতে হয়।
বাঘা সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা আব্দুল গফুর মিঞা বলেন, ধরাছোয়ার বাইরে থেকে চলে জুয়ার আসর। উপজেলা আইন শৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভায় সরকার ঘোষিত মাদক নিয়ন্ত্রন,চোরাচালান প্রতিরোধসহ বাঘার ঈদ মেলায় বিনোদনের নামে অনৈতিক কার্যকলাপ বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়েছে। উপজেলা নির্বাহি অফিসার শাহিন রেজা বলেন, ধর্মীয় ওরস উপলক্ষে এ মেলায় অশ্লিতা বন্ধে তিনি বদ্ধ পরিকর। ওসি রেজাউল হাসান বলেন,জুয়া ও মাদকের ব্যাপারেও শক্ত অবস্থানে থাকবেন তিনি।