অনলাইন ডেস্ক::

সিঙ্গাপুরে আরো একজন বাংলাদেশি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। আক্রান্ত ব্যক্তিদের নাম-পরিচয় না দিলেও সিঙ্গাপুর কর্তৃপক্ষের দাবি, সেলেটার এরোস্পেস হাইটসে দুজন কাজ করতেন। একজনের বয়স ৩৯। তাদের মধ্যে একজন বাংলাদেশি ছিলেন। খবর নিশ্চিত করেছে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

এর আগে রবিবার এক বাংলাদেশি এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয় বলে খবর পাওয়া যায়। দেশটিতে এ নিয়ে মোট দুজন বাংলাদেশি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হলেন।

সিঙ্গাপুরের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইট থেকে জানা গেছে, করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত প্রথম বাংলাদেশির মতো দ্বিতীয়জনেরও চীন ভ্রমণের অভিজ্ঞতা নেই। ফেব্রুয়ারির ৬ তারিখ করোনাভাইরাসের উপসর্গ পাওয়ার পর তিনি পরদিন অর্থাৎ ৭ ফেব্রুয়ারি একটি সাধারণ ক্লিনিকে চিকিৎসা নিতে যান। ১০ ফেব্রুয়ারি তিনি এনসিআইডিতে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করাতে যান। সেখানে তাঁর করোনা ভাইরাসে সংক্রমণের বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়। এ মুহূর্তে তিনি সিঙ্গাপুরের বিশেষায়িত হাসপাতালে কোয়ারেন্টাইনে আছেন।

সিঙ্গাপুরের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত দ্বিতীয় বাংলাদেশি সেখানকার বীরাস্বামী এলাকায় থাকেন এবং সেলেটার অ্যারোস্পেস হাইটসে কাজ করতেন। ভাইরাসে আক্রান্ত প্রথমজনও কাজ করতেন সেলেটার অ্যারোস্পেস হাইটসে।

সিঙ্গাপুর সরকারের তথ্য মতে, এ পর্যন্ত পরীক্ষা নিরীক্ষায় ৬০৮ জনের দেহে করোনাভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া যায়নি। ৪৭ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের অস্তিত্ব পাওয়া গেছে। ফলাফলের অপেক্ষা রয়েছে ৪৩ জনের। এর মধ্যে ৩৮ জনের অবস্থা উন্নতির দিকে, ৭ জনের অবস্থা গুরুতর। তাদের আইসিসিইউতে রাখা হয়েছে। তবে সিঙ্গাপুরে করোনাভাইরাসে এখনো কারও মৃত্যুর ঘটনা ঘটেনি।