রবিবার, ২৩ Jul ২০১৭ | ৮ শ্রাবণ ১৪২৪ English Version

সারাদেশ

সিলেটে ছাত্রলীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষে নিহত ১

ই-কণ্ঠ ডেস্ক রিপোর্ট:: আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সিলেটের বিয়ানীবাজার সরকারি কলেজে ছাত্রলীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষে এক ছাত্রলীগ কর্মী নিহত হয়েছেন। আজ সোমবার দুপুরে ছাত্রলীগের পল্লব ও পাভেল গ্রুপের মধ্যে এই সংঘর্ষ হয়। এই সংঘর্ষে আরো ৬-৭ জন আহত হয়েছেন। নিহত ছাত্রলীগ কর্মীর নাম খালেদ আহমদ লিটু (২৩)। লিটু ছাত্রলীগের পাভেল গ্রুপের কর্মী বলে জানা গেছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, শ্রেণিকক্ষে ঢুকে লিটুকে গুলি করা হয়। সিলেটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সুজ্ঞান চাকমা নিহতের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানিয়েছেন, খালেদ আহমদ লিটুর মাথায় গুলি লেগেছে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

ভিয়েতনাম থেকে আনা চাল খালাস হবে কাল

ই-কণ্ঠ ডেস্ক রিপোর্ট:: সরকারি গুদামে খাদ্যের মজুদ বৃদ্ধি ও চালের দাম সহনীয় পর্যায়ে আনার লক্ষ্যে ভিয়েতনাম থেকে আমদানি করা প্রথম চালানের চাল এখনো জেটিতে পৌঁছায়নি। আড়াই লাখ টন চালের মধ্যে প্রথম দফায় ২০ হাজার টন চাল নিয়ে গত বৃহস্পতিবার চট্টগ্রাম বন্দরের বহির্নোঙরে এসেছিল এমভি ভিসাদ নামের বড় জাহাজটি। এরপর শিপিং এজেন্ট কর্তৃপক্ষ চালের নমুনা পরীক্ষা, কাস্টমস ছাড়পত্র সংগ্রহ, বন্দরের জেটিতে বার্থিং (জাহাজ ভেড়ানোর) অনুমতি নিলেও বহির্নোঙরে চাল খালাসের উপযোগী ছোট জাহাজ (লাইটার) না পাওয়ায় দ্রুততম সময়ে খালাসের কাজ শুরু করা যাচ্ছে না। এমভি ভিসাদর এজেন্ট ইউনি শিপিংয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবুল হোসাইন বলেন, সরকার জরুরিভিত্তিতে চাল আমদানি করেছে। কিন্তু চাল খালাসের জন্য ডাব্লিউটিসিসহ সবার প্রয়োজনীয় সহযোগিতা পেলে দ্রুততম সময়ে চাল গুদামে চলে যেত। ইতিমধ্যে আমরা আগামীকাল মঙ্গলবার সকালে বড় জাহাজটি জেটিতে আনার জন্য বার্থিং শিডিউল পিছিয়ে দিয়েছি। ডাব্লিউটিসির নির্বাহী পরিচালক মাহবুব রশীদ জানান, খাদ্য অধিদপ্তরের চাল খালাসের জন্য একটি জাহাজ কম্পানিকে লাইটার শিপ সরবরাহের জন্য বলা হয়েছে। তারা একটি জাহাজ বহির্নোঙরে পাঠিয়েছিল। কিন্তু খোলা পণ্য হিসেবে না এনে চালগুলো আনা হয়েছে বস্তাভর্তি করে। তাই ‍লাইটারটি উপযোগী না হওয়ায় বাতিল করা হয়েছে। পরবর্তীতে আরেকটি জাহাজ দেওয়া হয়েছে। খাদ্য অধিদপ্তরের চলচল ও সংরক্ষণ নিয়ন্ত্রক জহিরুল ইসলাম বলেন, চাল যতক্ষণ ট্রাকে লোড করা হবে না ততক্ষণ আমরা চালান বুঝে নেওয়ার সুযোগ নেই। সেই হিসেবে আমরা এখনো চাল বুঝে পাইনি। আশা করি, মঙ্গলবার বহির্নোঙরে থাকা বড় জাহাজ এবং লাইটারিং করা ছোট জাহাজ জেটিতে ভিড়বে। এরপর ট্রাকে চাল খালাস করা হবে। সর্বশেষ ভিয়েতনাম থেকে দ্বিতীয় চালানে আরেকটি বড় জাহাজ এমভি ট্যাক্স চট্টগ্রাম বন্দরের বহির্নোঙরে এসে পৌঁছেছে সোমবার। সংশ্লিষ্টদের ধারণা প্রথম চালানের জাহাজ থেকে চাল খালাসে দীর্ঘসূত্রতার অভিজ্ঞতা কাজে লাগাতে পারলে দ্বিতীয় চালানের জাহাজটি থেকে দ্রুততম সময়ে চাল খালাস করা সম্ভব হবে।

বেনাপোলে পাঁচটি স্বর্ণের বারসহ যাত্রী আটক

ই-কণ্ঠ ডেস্ক রিপোর্ট:: ভারতে পাচারের সময় বেনাপোল চেকপোস্ট কাস্টমস থেকে এক কেজি ২৫০ গ্রাম ওজনের পাঁচটি স্বর্ণের বারসহ সেলিম হাওলাদার (৪৫) নামে এক যাত্রী আটক হয়েছেন। আজ সোমবার সকাল ৮টার দিকে কাস্টমস শুল্ক গোয়েন্দা সদস্যরা তাকে আটক করে। আটক স্বর্ণ পাচারকারী সেলিম মুন্সীগঞ্জের টঙ্গীবাড়ি বলয় এলাকার সামসুল হক হাওলাদারের ছেলে। বেনাপোল কাস্টমস শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অফিসের সহকারী রাজস্ব কর্মকর্তা আব্দুল মুতালিব জানান, পাচারের বিষয়ে গোপন খবর ছিল। বেনাপোল কাস্টমস-চেকপোস্ট থেকে বের হওয়ার পথে তাকে ধরা হয়। পরে তার শরীর তল্লাশি করে জুতার মধ্য থেকে এক কেজি ২৫০ গ্রাম ওজনের পাঁচটি স্বর্ণের বার পাওয়া যায়। পাচারকারী ওই ব্যক্তিকে জিজ্ঞাসাবাদ ও আইনি প্রক্রিয়া চলছে বলে জানান এই রাজস্ব কর্মকর্তা।

শীতলক্ষ্যায় যাত্রীবাহী ট্রলার ডুবি, নারীসহ ‘কয়েকজন’ নিখোঁজ

ই-কণ্ঠ ডেস্ক রিপোর্ট:: গাজীপুরের কাপাসিয়া উপজেলার সিংহশ্রী এলাকায় শীতলক্ষ্যা নদীতে যাত্রীবাহী ট্রলারডুবির ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় এক নারীসহ কয়েকজন নিখোঁজ রয়েছেন বলে স্থানীয় লোকজন জানিয়েছে। রোববার দিবাগত রাত ১০টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর খবর পেয়ে রাতেই উদ্ধারকাজ শুরু করে গাজীপুর ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের কর্মীরা। রাতভর অভিযান চালিয়ে কাউকে উদ্ধার করা যায়নি। স্থানীয়দের বরাত দিয়ে কাপাসিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু বকর সিদ্দিক জানান, শ্রীপুর উপজেলার বরমী বাজার এলাকার শীতলক্ষ্যা নদীর ঘাট থেকে ২০-২৫ জন পোশাক শ্রমিককে নিয়ে ইঞ্জিনচালিত একটি ট্রলার কাপাসিয়ার সিংহশ্রী বাজার খেয়াঘাটে যাচ্ছিল। পথে বালুবাহী একটি নৌকার সঙ্গে ধাক্কা খেয়ে ট্রলারটি মাঝ নদীতে ডুবে যায়। এ সময় বেশির ভাগ যাত্রী সাঁতরে এবং স্থানীয়দের সহায়তায় তীরে উঠে আসে। তবে এখনো এক নারীসহ কয়েকজন নিখোঁজ রয়েছে। ওসি আরো জানান, সিংহশ্রী ক্যাম্পের পুলিশ বালুবাহী ওই নৌকা ও সেটির মাঝিকে আটক করেছে। গাজীপুর ফায়ার সার্ভিসের উপসহকারী পরিচালক আকতারুজ্জামান বলেন, এ ঘটনায় এক নারী নিখোঁজ আছেন বলে জেনেছি। রাতভর অভিযান চালিয়ে কাউকে উদ্ধার করা যায়নি। সকালে আবার উদ্ধারকাজ শুরু হচ্ছে। সূত্র : এনটিভি

খুলনায় পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে ২ সন্ত্রাসী নিহত

ই-কণ্ঠ ডেস্ক রিপোর্ট:: খুলনায় পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে ২ সন্ত্রাসী নিহত হয়েছেন। আজ সোমবার ভোরে মহানগরীর রেলওয়ে প্রভাতী স্কুলের পেছনে এ ঘটনা ঘটে। নিহত সন্ত্রাসীরা হচ্ছেন- বাবু ওরফে গুড্ডু বাবু (৩৫) ও আল মাহমুদ (২৫)। এদিকে অপর ঘটনায় সোনাডাঙ্গা থানা পুলিশের অভিযানে নূরনগর এলাকায় ইয়াসিন আরাফাত নামের এক সন্ত্রাসী গুলিবিদ্ধ হয়েছে। খুলনা মহানগর পুলিশের (কেএমপি) মুখপাত্র এডিসি মনিরা সুলতানা জানান, এদের প্রত্যেক্যের বিরুদ্ধে হত্যাসহ একাধিক মামলা রয়েছে।

আশুলিয়ার আস্তানা থেকে চার ‘জঙ্গি’র আত্মসমর্পণ

ই-কণ্ঠ ডেস্ক রিপোর্ট:: সাভারের আশুলিয়ার নয়ারহাট চৌরাবালি এলাকার একটি বাড়িতে জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে অভিযান চালাচ্ছে র‌্যাব। সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী সেখানে অবস্থান নেয়া সকল জঙ্গি র‌্যাবের কাছে আত্মসমর্পণ করেছেন। তবে তাদের পরিচয় এখনও জানা যায়নি। রোববার দুপুর সাড়ে ১২টায় প্রথমে দুই ‘জঙ্গি’ আত্মসমর্পণ করেন। ১টার পর আরও দুই ‘জঙ্গি’ও আত্মসমর্পণ করেন। আজ রোববার দুপুর ১২টায় এ রিপোর্ট লেখার আগ পর্যন্ত ওই আস্তানা থেকে গুলির শব্দ পাওয়া যায়। র‌্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার মুফতি মাহমুদ খান চার ‘জঙ্গি’র আত্মসমর্পণের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, তাদের আহ্বানের পরিপ্রেক্ষিতে দুপুর ১২টার দিকে দুই জঙ্গি আত্মসমর্পণ করেন। ভেতনে তখনও দুই জঙ্গি সশস্ত্র অবস্থায় অবস্থান করছিলেন। আত্মসমর্পণকারী দুই জঙ্গির মাধ্যমে আমরা তাদেরও আত্মসমর্পণের আহ্বান জানাই। দুপুর ১টার দিকে তারা আস্তানা থেকে দুই হাত তুলে বের হয়ে আসে। আত্মসমর্পণকারী চার জঙ্গিকে র‌্যাব হেফাজতে নেয়া হয়েছে বলেও জানান তিনি। এর আগে, সকাল সাড়ে ৭টার দিকে ওই আস্তানা থেকে গুলি ও বোমার বিস্ফোরণ ঘটানো হয়। এরও আগে র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে বাড়ির ভেতর থেকে রাত ৩টার দিকে সন্দেহভাজন জঙ্গিরা র‌্যাব সদস্যদের লক্ষ্য করে কয়েক রাউন্ড গুলি ছোড়ে। মুফতি মাহমুদ এর আগে জানান, গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে বাড়িটিতে জঙ্গিদের অবস্থান নিশ্চিত হয়ে সেখানে যায় র‌্যাব। প্রথম থেকেই জঙ্গিদের আত্মসমর্পণের আহ্বান জানানো হয়। অভিযান শুরুর আগে ওই বাড়ির আশপাশের বাসিন্দাদের নিরাপদ স্থানে সরিয়ে নেয়া হয়। র‌্যাবের বিশেষ ইউনিট এবং বোমা নিষ্ক্রিয়কারী দলও সেখানে অবস্থান করছে। শনিবার দিবাগত রাত ১টা থেকে আশুলিয়ার নয়ারহাট চৌরাবালি এলাকার ইব্রাহিম নামের এক ব্যক্তির মালিকানাধীনে ওই বাড়িটি ঘেরাও করে অভিযান শুরু করে র‌্যাব। আজাদ নামে এক ব্যক্তি নিজেকে পোশাক শ্রমিক পরিচয় দিয়ে বাড়িটি ভাড়া নেয়।

চট্টগ্রামে ভারতীয় শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার

ই-কণ্ঠ ডেস্ক রিপোর্ট:: চট্টগ্রাম নগরের আবদুল হামিদ সড়কের একটি বাড়ি থেকে ভারতীয় এক শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। ফ্যানের সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে ভারতীয় আরেক শিক্ষার্থীকে। তিনি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। গতকাল শুক্রবার দিবাগত রাত একটার দিকে ইউসুফ ভবন থেকে আসিফ শেঠ (২৬) নামের ওই শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার করা হয়। লাশের শরীরে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাতের চিহ্ন ছিল বলে জানিয়েছে পুলিশ। ফ্যানের সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার উইসন সিং চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। তাঁরা দুজনেই চট্টগ্রামের বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় ইউএসটিসির এমবিবিএস শিক্ষার্থী। নগরের আকবর শাহ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আলমগীরের ভাষ্য, ইউসুফ ভবনের পঞ্চম তলার একটি ফ্ল্যাটে থাকতেন ইউএসটিসির ভারতীয় চার শিক্ষার্থী। ফ্ল্যাটের তিনটি কক্ষের মধ্যে একটিতে থাকতেন নিহত আসিফ শেঠ। আরেকটিতে উইসন। আরেকটি কক্ষে নীরাজ গুরু তাঁর স্ত্রী জোৎস্নাকে নিয়ে থাকতেন। নীরাজ গুরুর বরাত দিয়ে ওসি আলমগীর জানান, গতকাল রাতে ফ্ল্যাটে সবাই একসঙ্গে বসে গল্প করেন এবং মদ্যপান করেন। এরপর নীরাজ তাঁর স্ত্রীকে নিয়ে নিজের কক্ষে চলে যান। আসিফ উইসনের কক্ষে যান। রাত সাড়ে ১২টার দিকে উইসনের কক্ষ অন্ধকার দেখে নীরাজ বারবার ধাক্কা দিতে থাকেন। কিন্তু ভেতর থেকে কোনো সাড়া শব্দ পাননি। পরে বিকল্প চাবি দিয়ে দরজা খোলেন। দরজা খুলে নীরাজ দেখতে পান, বাসার ফ্যানের সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় আছেন উইসন। আর মেঝেতে রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে আছেন আসিফ শেঠ। নীরাজের বরাত দিয়ে ওসি আলমগীর আরও জানান, নীরাজ প্রতিবেশীদের সঙ্গে নিয়ে উইসন ও আসিফকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক আসিফকে মৃত ঘোষণা করেন। আসিফের শরীরে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাতের চিহ্ন ছিল। পুলিশ নীরাজ ও তাঁর স্ত্রী জোসনাকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে। পুরো বিষয়টি পুলিশ তদন্ত করে দেখছে বলে জানিয়েছে।

৫৬ ইউনিয়নে ভোটগ্রহণ চলছে

ই-কণ্ঠ ডেস্ক রিপোর্ট:: সারাদেশে বিভিন্ন জেলায় ৫৬টি ইউনিয়ন পরিষদসহ পৌরসভা ও জেলা পরিষদের বিভিন্ন পদে সাধারণ নির্বাচন, উপনির্বাচন ও স্থগিত ভোট পুনরায় গ্রহণ শুরু হয়েছে। নির্বাচন কমিশনের উপ-সচিব নুরুজ্জামান তালুকদার জানান, বৃহস্পতিবার সকাল ৮টায় শুরু হওয়া ভোট একটানা বিকাল ৪টা পর্যন্ত চলবে। নির্বাচনে ৫৬টি ইউনিয়নের মধ্যে ২২টিতে সাধারণ, ৩৪টিতে উপনির্বাচন, ২টিতে পুনরায় ভোটগ্রহণ, আর পাবনার সুজানগর পৌরসভার ৬ নম্বর ওয়ার্ডে উপনির্বাচন ও সাতক্ষীরা জেলা পরিষদের স্থগিত দুটি ওয়ার্ডে পুনরায় ভোটগ্রহণ করা হচ্ছে, জানিয়েছেন উপসচিব নুরুজ্জামান তালুকদার। আজ সকাল সাড়ে নয়টা পর্যন্ত কোথাও থেকে কোনো অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি। ব্রাহ্মণবাড়িয়া : ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মোট আটটি ইউনিয়নে উপনির্বাচনে ভোট চলছে বলে জানিয়েছেন জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. আলাউদ্দিন। তিনি বলেন, আট ইউনিয়নের মধ্যে তিনটিতে চেয়ারম্যান পদে বিভিন্ন দলের নয় প্রার্থী আর অন্য পাঁচ ইউনিয়নের বিভিন্ন ওয়ার্ডে সদস্যপদে ভোট চলছে। সকালে এ জেলার কয়েকটি কেন্দ্রে গিয়ে ভোটার উপস্থিতি কম দেখা গেছে। ভলাকুট দক্ষিণ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিসাইডিং কর্মকর্তা মো. শফিকুল ইসলাম জানান, সকাল পৌনে ১০টা পর্যন্ত এ কেন্দ্রের ১৮৭০ ভোটারের মধ্যে ভোট দিয়েছেন ১৮০ জন। টাঙ্গাইল : টাঙ্গাইল সদর উপজেলায় ৩টি ও মধুপুর উপজেলায় ৮টি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ১৯ প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। সকাল ৮টায় শুরুর পর শান্তিপূর্ণভাবে ভোট চলছে বলে জানিয়েছেন জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মো.তাজুল ইসলাম। যেসব ইউনিয়নে নির্বাচন হচ্ছে সেগুলো হলো– সদর উপজেলায় কাতুলী ইউনিয়ন, মাহমুদনগর ও ছিলিমপুর; মধুপুর উপজেলায় আউশনারা ইউনিয়ন, কুড়ালিয়া, বেরিবাইদ, শোলাকুড়ি, ফুলবাগচালা, মহিষমারা, অরণখোলা ও কুড়াগাছা ইউনিয়ন। মধুপুরের আট ইউনিয়নে ১ লাখ ৯ হাজার ৭৩৯ জন আর টাঙ্গাইল সদরের তিন ইউনিয়নের মোট ভোটর ৫০ হাজার ৩৬২ জন বলে জানিয়েছেন রিটার্নিং কর্মকর্তা তাজুল ইসলাম।

৮ নদীর পানি বিপদসীমার ওপরে

ই-কণ্ঠ ডেস্ক রিপোর্ট:: আট নদীর পানি বিপদসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এ কারণে দেশের ১৩ জেলায় বন্যা পরিস্থিতি বিরাজ করছে। ওইসব জেলায় কোটিরও বেশি মানুষ পানিবন্দি হয়ে দিন কাটাচ্ছে। উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলের কারণে এমন পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। আর এর সঙ্গে যোগ হয়েছে দেশের ভেতরে ভারি বৃষ্টিপাতের পানি। আগামী ৪৮ ঘণ্টায় বন্যা পরিস্থিতির তেমন উন্নতির সু-খবর নেই। বরং দেশের উত্তরাঞ্চলের পানি নেমে আসায় মধ্যাঞ্চল এবং নিন্ম-মধ্যাঞ্চলের নদ-নদী টইটম্বুর হয়ে যাচ্ছে। এসব এলাকার চরাঞ্চলে ইতিমধ্যে পানি বাড়তে শুরু করেছে। এদিকে, মঙ্গলবার সকাল থেকে সারাদিন ও রাতের ভারি বৃষ্টিতে সারা দেশে জনজীবনে ব্যাপক দুর্ভোগ নেমে এসেছে। বৃষ্টিতে রাজধানীর বিভিন্ন এলাকা পানিতে তলিয়ে যায়। এ কারণে ওইসব এলাকায় শিক্ষার্থীরা সকালে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যেতে পারেনি। এতে প্রতিষ্ঠানের লেখাপড়াও বিঘ্নিত হয়। আবহাওয়া অধিদফতরের (বিএমডি) কর্মকর্তা আফতাব হোসেন বুধবার রাতে জানান, মঙ্গলবার সকাল ৬টা থেকে বুধবার পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় কেবল রাজধানীতেই ১০৩ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। বুধবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত দেশে সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাত রেকর্ড হয়েছে রাজশাহীতে ১১৫ মিলিমিটার। বুধবার ঢাকায় তেমন বৃষ্টি হয়নি। সকাল ৬টা থেকে ১২ ঘণ্টায় মাত্র ৬ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে রাজধানীতে। এই কর্মকর্তার তথ্য অনুযায়ী, রাতের বৃষ্টিই ভুগিয়েছে রাজধানীবাসীকে। দেশের নদনদীতে পানির প্রধান উৎস তিনটি নদী অববাহিকা। এগুলো হল, ব্রহ্মপুত্র-যমুনা, সুরমা-কুশিয়ারা বা মেঘনা এবং গঙ্গা-পদ্মা। এর মধ্যে সুরমা-কুশিয়ারায় বিপদসীমার ওপরে পানি প্রবাহিত হওয়ায় সিলেট বিভাগের বিভিন্ন অঞ্চলে গত দু’সপ্তাহ ধরে বন্যা চলছে। অপরদিকে, প্রায় এক সপ্তাহ ধরে ব্রহ্মপুত্র-যমুনা অববাহিকায় পানির প্রবাহ বেড়েছে। এ কারণে উত্তরের জেলা কুড়িগ্রাম, জামালপুর, গাইবান্ধা, বগুড়া, সিরাজগঞ্জে বন্যা দেখা দিয়েছে। এসব জেলার লাখ লাখ লোক পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। ঘরবাড়ি ছেড়ে অনেকেই খোলা আকাশের নিচে, রাস্তায় বেড়িবাঁধে আশ্রয় নিয়েছেন।

প্রধান সংবাদ


সর্বশেষ সংবাদ

সীতাকুণ্ডে অজ্ঞাত রোগে ৯ শিশুর মৃত্যু

চট্টগ্রামে প্রশিক্ষণ বিমান বিধ্বস্ত

ভারত জলকপাট খুলে দেয়ায় বাংলাদেশে বন্যা

ঝালকাঠিতে পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত নিহত

ভাতিজিকে হত্যার পর চাচার আত্মহত্যা

ব্যারেজ খুলে দিলো ভারত, বিপদসীমার ওপরে তিস্তার পানি

গাইবান্ধার চরাঞ্চলে ব্লক রেইড, আটক ৬

উত্তর-মধ্যাঞ্চলে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি

গাইবান্ধায় চরাঞ্চলে জঙ্গিবিরোধী অভিযান সমাপ্ত


আজকের সব সংবাদ

সম্পাদক : মো. আলম হোসেন
প্রকাশনায় : এ. লতিফ চ্যারিটেবল ফাউন্ডেশন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়:
সরদার নিকেতন
হাসনাবাদ, দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ, ঢাকা-১৩১১।

ফোন: ০২-৭৪৫১৯৬১
মুঠোফোন: ০১৭৭১৯৬২৩৯৬, ০১৭১৭০৩৪০৯৯
ইমেইল: ekantho24@gmail.com