শনিবার, ২২ Jul ২০১৭ | ৭ শ্রাবণ ১৪২৪ English Version

সারাদেশ - রংপুর বিভাগ - লালমনিরহাট

ট্রেনে কাটা পড়ে অজ্ঞাত ব্যক্তির মৃত্যু

জিন্নাতুল ইসলাম জিন্না, লালমনিরহাট প্রতিনিধি॥ লালমনিরহাটের হাতীবান্ধায় ট্রেনে কাটা পড়ে অজ্ঞাত পরিচয় (৫৬) এক ব্যক্তির মৃত্যুু হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে লালমনিরহাট-বুড়িমারী রেলরুটের হাতীবান্ধা উপজেলার পশ্চিম বেজগ্রাম এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। লালমনিরহাট রেলওয়ে থানার (জিআরপি) ওসি মনিরুজ্জামান জানান, সকালে পশ্চিম বেজগ্রাম এলাকায় রেললাইনে ওই ব্যক্তির লাশ পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয় লোকজন রেলওয়ে পুলিশকে খবর দেয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে। হাতীবান্ধা রেলওয়ে স্টেশন মাস্টার নূরন্নবী মিয়া জানান, ধারণা করা হচ্ছে বুধবার রাতে লালমনিরহাট থেকে বুড়িমারীগামী লোকাল ৪৫৬ নম্বর ট্রেনে কাটা পড়ে তার মৃত্যু হয়েছে।

মাত্র সাতশ টাকার জন্য প্রাণ হারালো ৪ জন

জিন্নাতুল ইসলাম জিন্না, লালমনিরহাট থেকে॥ মাত্র সাতশ টাকার জন্য ৪টি তাজা প্রাণ অকালেই ঝড়ে গেল। ঝড়ে ছিড়ে যাওয়া বৈদ্যুতিক তার মেরামত করতে গিয়ে বিদ্যুতস্পৃষ্ট হয়ে লালমনিরহাটের হাতীবান্ধায় ৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। নিহতরা হলেন, হাতীবান্ধা উপজেলার ভেলাগুড়ি এলাকার শামছুদ্দিনের ছেলে স্থানীয় বিদ্যুত ইলেক্ট্রেশিয়ান খোরশেদ আলম (৪৫), একই এলাকার আজিজার রহমানের ছেলে স্থানীয় বিদ্যুত ইলেক্ট্রেশিয়ান ফেরদৌস আলম (২৮), গোলাপ মিয়ার ছেলে উকিল (২৫) ও ওই এলাকার জোনাব আলীর ছেলে উত্তর বাংলা বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের অনার্স দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র মিলটন মিয়া (২৪)। স্থানীয়রা জানান, মঙ্গলবার বিকেলে ঝড়ে ছিড়ে যায় ওই উপজেলার ভেলাগুড়ি ইউনিয়নের কাছিম বাজার এলাকার ৩৩ হাজার ভোল্টেজের লাইন। এতে বিদ্যুত বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে পুরো এলাকার। ছিড়ে পড়া বিদ্যুতের তার মেরামত করতে নিজেরা না এসে মোবাইল ফোনে স্থানীয় ইলেক্ট্রোশিয়ানদের সাথে চুক্তি করে বিদ্যুত বিভাগ। এতে ইলেক্ট্রেশিয়ানরা এক হাজার দুইশত টাকা দাবি করলে প্রথম দিকে বিদ্যুত বিভাগ তাদেরকে সাতশ টাকা দিতে রাজি হয়। কাজের টাকা নিয়ে ইলেক্ট্রেশিয়ানদের সাথে কথা কাটাকাটিও হয় বিদ্যুৎ বিভাগের লোকজনের। বিদ্যুৎ বিভাগের লোকজনের কথামত আজ বুধবার সকাল ১১টার দিকে কাজ শুরুর আগে মেইন লাইনে বিদ্যুত বিচ্ছিন্ন করা হলে উকিল মিয়া নামে এক ইলেক্ট্রেশিয়ান পিলারে উঠেন। বাকী ৩জন ছিড়ে পড়া তার উপড়ে তুলে দিচ্ছিলেন। এমন সময় বিদ্যুৎ বিভাগের অসাবধানতা বশত হঠাৎ লাইন চালু হলে বিদ্যুতস্পৃষ্ট হয় ৪জন। পিলারে থাকা উকিল ছিটকে নিচে পড়ে গিয়ে গুরুতর আহত হন এবং নিচে থাকা খোরশেদ আলম, ফেরদৌস ও মিলটন হোসেন তারে জড়িয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান। আহত উকিলকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে কালীগঞ্জ হাসপাতালে নিলে চিকিৎসকরা তাকেও মৃত্যু ঘোষনা করেন। একই সঙ্গে ৪টি মরদেহ কখনই দেখেননি স্থানীয়রা। এ ঘটনায় ভেলাগুড়ি কাছিম বাজার এলাকায় বইছে শোকের মাতম। বন্ধ হয়ে পড়েছে বাজারের বিকিকিনী। এলাকাবাসীর অভিযোগ, এ এলাকায় বিদ্যুতের কোন সমস্যা হলে বিদ্যুত বিভাগকে ডেকেও পাওয়া যায় না। তারা নিজেরা না এসে স্থানীয় ইলেক্ট্রেশিয়ানদের দিয়ে সমাধান করেন। নিহতেদের বন্ধু কাছিম বাজার এলাকার মুকুল মিয়া অভিযোগ তুলে বলেন, মঙ্গলবার রাতে ওই লাইনের তার তুলে দেয়ার পারিশ্রমিক নিয়ে বিদ্যুত বিভাগের লোকজনের সাথে মোবাইল ফোনে বিতর্ক বাঁধে ইলেক্ট্রেশিয়ানদের। এ বিতর্কেও জের ধরে বিদ্যুত বিভাগের লোকজন এ দুর্ঘটনা ঘটিয়েছে বলে স্থানীয়দের দাবি। তারা এর সুষ্ঠ তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়ার দাবি জানান। খবর পেয়ে হাতীবান্ধা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা(ইউএনও) সৈয়দ এনামুল কবির, ওসি রেজাউল করিম, সীমান্তবর্তি এলাকা হওয়ায় বডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ১৫ ব্যাটালিয়নের জাওরানী ক্যাম্পের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। বিদ্যুত উন্নয়ন বোর্ড লালমনিরহাট বিদ্যুত বিতরন বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী হাসনাত জামান এ প্রতিনিধিকে জানান, ঘটনাটি তদন্ত করা হচ্ছে। বিদ্যুত বিভাগের কারও গাফলাতির প্রমান পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে। লালমনিরহাট জেলা প্রশাসক আবুল ফয়েজ মোঃ আলাউদ্দিন খান জানান, প্রাথমিক তদন্ত করে দ্রুত প্রতিবেদন চেয়ে হাতীবান্ধা ইউএনও সৈয়দ এনামুল কবিরকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। তদন্ত প্রতিবেদন পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

লালমনিরহাটে ট্রাক থেকে ফেলে যুবককে হত্যা

জিন্নাতুল ইসলাম জিন্না, লালমনিরহাট প্রতিনিধি॥ লালমনিরহাট সদর উপজেলার এয়ারপোর্ট এলাকায় ট্রাক থেকে ফেলে দিয়ে নাজমুল হোসেন (১৭) নামে এক যুবককে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। আজ মঙ্গলবার সকাল ৬টায় লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধিন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। নিহত নাজমুল হোসেন সিরাজগঞ্জ জেলার সদর উপজেলার খোকশাবাড়ি ইউনিয়নের নওটা শৈলাবাড়ি গ্রামের নুরুল হকের ছেলে। নিহতের বাবা নুরুল হক জানান, লালমনিরহাটের ধরলার ডান তীর রক্ষা বাঁধের নির্মান কাজে ড্রোলরেজার মেশিনের সহকারী চালক নাজমুল কয়েক দিনের ছুটিতে তার বাড়ি সিরাজগঞ্জে যায়। ছুটি শেষে সোমবার বিকেলে বাড়ি থেকে কর্মস্থলে যোগদানের উদ্দেশ্যে বের হয়। সে ট্রাকে করে লালমনিরহাট আসছিলেন বলে তার সহকর্মী এনামুল জানান। পথি মধ্যে ট্রাকে তাকে মেরে জেলার এয়ারপোর্ট এলাকায় ফেলে দেয়। লালমনিরহাট পুলিশ লাইনের এসআই শৈলেন জানান, লালমনিরহাট-রংপুর মহাসড়কের এয়ারপোর্ট এলাকায় নাজমুলকে মুমূর্ষ অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে টহল পুলিশ তাকে উদ্ধার করে লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। এসময় নাজমুল পুলিশকে জানায় তাকে চলন্ত ট্রাক থেকে ফেলে দেয়া হয়েছে। লালমনিরহাট সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. আজমল হক জানান, মাথায় প্রচন্ড আঘাত নিয়ে রাত প্রায় ২টার দিকে হাসপাতালে ভর্তি হয় নাজমুল। প্রচন্ড রক্তক্ষরনে সকাল ৬টায় তার মৃত্যু হয়েছে। বর্তমানে তার মরদেহ সদর হাসপাতালের হিমঘরে রাখা হয়েছে। লালমনিরহাট সদর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) প্রদীপ কুমার রায় জানান, নিহত নাজমুলের বাবার সাথে কথা বলা হচ্ছে। তাদের ও উদ্ধারকারীদের সাথে কথা বলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

অলিম্পিকে অংশ নিতে ইন্দোনেশিয়া যাচ্ছেন লালমনিরহাটের দুই কৃতি ছাত্রী

লালমনিরহাট প্রতিনিধি॥ আগামীকাল ৮ ফেব্রুয়ারী বুধবার ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী জাকার্তার উদ্দেশ্যে বিমানে উঠছে লালমনিরহাটের দুই কৃতি ছাত্রী। এশিয়ান ইংলিশ অলিম্পিকে অংশ গ্রহন করার জন্য জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার করিম উদ্দিন পাবলিক পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের দুই ছাত্রী বুধবার ইন্দোনেশিয়ার উদ্দেশ্যে বাংলাদেশ ত্যাগ করবেন। আগামী ৯ ফেব্রুয়ারী থেকে ১৩ ফেব্রুয়ারী পর্যন্ত ৫ দিন ব্যাপী ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী জাকার্তায় এশিয়ান অলিম্পিক অনুষ্ঠিত হবে। কালীগঞ্জ করিম উদ্দিন পাবলিক পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্রী ও উপজেলার আবুল কাশেমের মেধাবী কন্যা উম্মে হাবিবা লিমা (পাবলিক স্পীচ বিষয়ে) এবং একই উপজেলার আব্দুল কাইয়ুম আজাদের কন্যা আফিয়া জাহীন রোদসি, (নিউজ কাষ্টিং বিষয়ে) প্রতিযোগীতায় অংশ নিবেন। ওই দুই ছাত্রীর সাথে অবজারভার হিসেবে থাকবেন ওই বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক বদরুল আলম জাদু। জেলা প্রশাসক আবুল ফয়েজ মো. আলা উদ্দিন খান এবং লালমনিরহাট জেলাবাসী ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী জাকার্তায় এশিয়ান অলিম্পিকে অংশ গ্রহন করার জন্য ওই দুই ছাত্রীকে অভিনন্দন জানিয়ে তাদের সাফল্য কামনা করেছেন। উল্লেখ্য, লালমনিরহাট জেলার একমাত্র কালীগঞ্জ উপজেলার করিম উদ্দিন পাবলিক পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় থেকেই প্রায় প্রতি বছরেই বিশ্বের বিভিন্ন স্থানে বিভিন্ন প্রতিযোগীতায় অংশ গ্রহন করে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় এ বছরেও ওই বিদ্যালয় থেকে দুই কৃতি ছাত্রী উম্মে হাবিবা লিমা ও আফিয়া জাহীন রোদসি এশিয়ান ইংলিশ অলিম্পিকে অংশ গ্রহন করার জন্য আগামীকাল ৮ ফেব্রুয়ারী বুধবার ইন্দোনেশিয়ার উদ্দেশ্যে বাংলাদেশ ত্যাগ করবেন।

লালমনিরহাটে তীব্র শীতে ৩ জনের মৃত্যু, অগ্নিদগ্ধ ১ শিশু

লালমনিরহাট প্রতিনিধি॥ উত্তরের হিমালয় থেকে নেমে আসা ঘন কুয়াশা আর কনকনে ঠান্ডায় বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে লালমনিরহাটের মানুষের জনজীবন। প্রচন্ড ঠান্ডায় কৃষক, শ্রমজীবি মানুষ ঘর হতে বাইরে যেতে পারছেন না। অনেকে টাকার অভাবে কিনতে পারছেন না শীতবস্ত্র। গরম কাপড়ের অভাবে পুরনো কাপড় আগুনে গরম করে শীত নিবারণ করছে। শীতার্তরা তাকিয়ে আছেন সরকারী অথবা বেসরকারী সাহায্য সহযোগিতার দিকে। সরকারীভাবে কিছু ত্রান সহায়তা হিসেবে কম্বল দেয়া হলেও তা ছিল খুবই অপ্রতুল। সরেজমিনে তিস্তা ও ধরলা নদীর চরাঞ্চলে গিয়ে দেখা গেছে, ঠান্ডায় বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে মানুষের জীবন। চরম বিপাকে রয়েছেন শ্রমজীবি, ছিন্নমুল ও তিস্তা-ধরলা পাড়ের হাজার হাজার হতদরিদ্র মানুষ। বিশেষ করে চরম বিপাকে পড়েছে শিশু ও বয়স্করা। কনকনে ঠান্ডায় শ্রমজীবি, ছিন্নমুল মানুষের পাশাপাশি সীমাহীন কষ্টে রয়েছেন চরাঞ্চলের হাজার হাজার হত দরিদ্র মানুষ। ঠান্ডা নিবারনে শীতবন্ত্র নেই তাদের। প্রচন্ড শীতের ঠান্ডায় থরথর করে কাঁপছেন তারা। আগুনে শরীর গরম করে অনেকে কাজে বের হচ্ছেন। প্রচন্ড শীতে দিশেহারা এসব মানুষ। শীতবস্ত্র কেনার সামর্থ্যহীন এসব শীতার্ত মানুষ তাকিয়ে থাকেন সরকারী অথবা বেসরকারী সাহায্য সহযোগিতার উপর। কিন্তু যেটুকু শীতবস্ত্র মিলেছে তা খুবই অপ্রতুল। অনেকের ভাগ্যে এখনো মিলেনি একটুকরো শীতবস্ত্র। তিস্তা নদী বেষ্টিত সদর উপজেলার কালমাটি গ্রামের ওয়াজেদ আলী, মহুবার রহমান, হাজেরা বেগম জানালেন, ঘন কুয়াশা আর কনকনে হিমেল বাতাসের কারনে তারা ঘর হতে বের হয়ে কাজে যেতে পারছেন না। শীত নিবারনের জন্য ঘরে গরম কাপড় না থাকায় তারা মানবেতর জীবন-যাপন করছেন। বাজারে গরম কাপড়ের খোলা দোকানে দাম বেশি হওয়ায় কিনতে পারছেন না চাহিদা মতো শীতের কাপড়। ফলে নদী তীরবর্তী এলাকায় অনেকেই খড়কুটো জ্বালিয়ে শীত নিবারন করছেন। কালমটি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্রী শাপলা আক্তার জানান, শীতের কারণে সময়মতো বিদ্যালয়ে যেতে পারছেন তাদের বিদ্যালয়ের অনেক শিক্ষার্থী। তাই তাদের লেখাপড়া ব্যাহত হচ্ছে। এদিকে গত এক সপ্তাহে শীত সহ্য করতে না পেরে সদর উপজেলার কালমাটি মাষ্টারপাড়া গ্রামের পঁচা মাহমুদ(৭০) কোল্ড স্ট্রোকে মৃত্যু বরন করেন তাছাড়া শীত নিবারনে আগুন পোয়াতে গিয়ে দগ্ধ হয়ে মোগলহাট ইউনিয়নের জারী ধরলা গ্রামের অমিতন বেওয়া (৬৫), কালিগঞ্জ উপজেলার চলবলা ইউনিয়নের শিয়ালখোয়া গ্রামের তরনী কান্ত (৬৩) মারা যান। অপরদিকে, আদিতমারী উপজেলার সারপুকুর ইউনিয়নের খারুভাঁজ গ্রামে আগুন তাপাতে গিয়ে শিশু আর্জিনা আক্তারের (১০) পরনের কাপড়ে আগুন লেগে শরীরের পঞ্চাশ শতাংশ পুড়ে যায়। প্রচন্ড শীতের কারণে শীত জনিত নানা রোগ দেখা দিচ্ছে। ফলে গ্রামাঞ্চলের অনেক শিশুই সর্দি, কাশি জ্বরসহ শীতজনিত নানা রোগে ভূগছে বলেও জানা গেছে। আগামী কয়েকদিনে লালমনিরহাটে শীতের তীব্রতা আরো বাড়তে পারে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়া বিশেষজ্ঞরা। জেলা ত্রাণ ও পূর্ণবাসন অফিসার একেএম ইদ্রিস আলী জানান, শীতার্ত মানুষের পাশে রয়েছে লালমনিরহাট জেলা প্রশাসন। জেলার চরাঞ্চলসহ বিভিন্ন এলাকার শীতার্ত মানুষের জন্য এ পর্যন্ত ২৫ হাজার ৭০১ পিচ কম্বল বিতরন করা হয়েছে। তাছাড়াও বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারী প্রতিষ্ঠান শীতার্ত মানুষের সহায়তায় এগিয়ে আসছে। তবে আরো বরাদ্দ চেয়ে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ে আবেদন করা হয়েছে।

হুমকীর মুখে তিস্তা ব্যারেজ

জিন্নাতুল ইসলাম জিন্না, লালমনিরহাট থেকে॥ তিস্তা ব্যারেজের বাম তীর রক্ষা বাঁধের নিচে অর্ধশত বোমা মেশিনে উত্তোলন করা হচ্ছে পাথর ও বালু। বোমা মেশিনে পাথর উত্তোলনের কারণে হুমকির মুখে পড়েছে দেশের সর্ববৃহৎ এই সেচ প্রকল্পটি। এর ঠিক দেড়/দুইশ’ গজের মধ্যেই রয়েছে তিস্তা ব্যারেজ সেচ প্রকল্প। প্রশাসনের নজরদারীর অভাবেই প্রতিনিয়ত বাড়ছে বোমা মেশিনের সংখ্যা। এ কারনেই বর্তমানে হুমকির মুখে পড়ছে এ সেচ প্রকল্পটি। জানা যায়, নীলফামারী জেলার ৮ হাজার হেক্টর জমিতে সেচের লক্ষ্যে নব্বই দশকে লালমনিরহাট জেলার হাতীবান্ধা উপজেলার গড্ডিমারী ইউনিয়নের সাধুর বাজার এলাকায় তিস্তা ব্যারেজ নামে সেচ প্রকল্পটি পানি উন্নয়ন বোর্ড বাস্তবায়ন করে। এ ব্যারেজের বাম ও ডান তীর রক্ষার জন্য সিসি বন্টক দিয়ে রক্ষা বাঁধও নির্মাণ করা হয়। যার মধ্যে বাম তীর রক্ষা বাঁধটি সম্পূর্ণরুপে হাতীবান্ধা উপজেলার গড্ডিমারী ও সানিয়াজান ইউনিয়নের মধ্যে পড়ে। যা ওই সময় দেড় কিলোমিটার বাঁধ নির্মাণ করেই কাজের সমাপ্ত করা হয়। ব্যারেজের আনসার ক্যাম্পের পেছনে সেই বাঁধটির নিচেই তিস্তা নদীতে বসানো হয়েছে অর্ধশত বোমা মেশিন। এসব বোমা মেশিনে প্রতিদিন উত্তোলন করা হচ্ছে পাথর ও বালু। ফলে বাঁধটিসহ তিস্তা ব্যারেজ হুমকির মুখে পড়েছে। যেকোনো মুহুর্তে ধ্বসে যেতে পারে বাঁধসহ তিস্তা ব্যারেজ প্রকল্পটি। আর এ বাঁধটি ধ্বসে গেলে হাতীবান্ধা উপজেলা পরিষদ, লালমনিরহাট বুড়িমারী মহাসড়ক ও রেলরুটসহ বেশ কিছু স্থাপনা নদী গর্ভে বিলিন হয়ে যাবে। বাঁধের পাশে বসবাসরত লোকজন জানান, স্থানীয় একটি প্রভাবশালী গ্রুপ এ পাথর উত্তোলনের সঙ্গে জড়িত। স্থানীয় প্রশাসনকে ম্যানেজ করেই চলছে পাথর উত্তোলনের কাজ। প্রশাসনের তৎপরতার অভাবে দিন দিন বেড়েই চলেছে বোমা মেশিনের সংখ্যা। তবে স্থানীয় প্রশাসনের দাবি পাথর উত্তোলন বন্ধে হাতীবান্ধা উপজেলা প্রশাসন অভিযান চালালে বলা হয় ওই অংশটি নীলফামারীর ডোমার উপজেলার আওতাভুক্ত। আবার নীলফামারী জেলা প্রশাসন গেলে তাদের বলা হয় হাতীবান্ধা উপজেলার মধ্যে পড়েছে। মূলত পাথর উত্তোলন এলাকাটি হাতীবান্ধা উপজেলার মধ্যে পড়েছে বলেই স্থানীয়দের দাবি। এ ব্যাপারে হাতীবান্ধা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সৈয়দ এনামুল কবির এর নিকট জানতে চাইলে তিনি জানান, পাথর উত্তোলন বন্ধে নীলফামারী জেলা ও হাতীবান্ধা উপজেলার নেতৃত্বে যৌথ অভিযান চালানোর পরিকল্পনা রয়েছে। এ ব্যাপারে দ্রুত অভিযান পরিচালনা করা হবে বলেও তিনি জানান। লালমনিরহাট জেলা প্রশাসক আবুল ফয়েজ মো. আলাউদ্দিন খান এ প্রতিনিধিকে জানান, নদী থেকে বালু বা পাথর উত্তোলনের কোন অনুমতি নেই। কেউ এসব কাজে জড়িত থাকলে তাদের বিরুদ্ধে অবশ্যই ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

লালমনিরহাটে বিএসএফের গুলিতে বাংলাদেশী নিহত

লালমনিরহাট প্রতিনিধি॥ লালমনিরহাটের আদিতমারী উপজেলার দুর্গাপুর সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে আসাদুল ইসলাম (২৬) নামে এক বাংলাদেশী গরুর রাখাল নিহত হয়েছে। স্থানীয়রা জানায়, রোববার ভোর রাতে আসাদুল দুর্গাপুর সীমান্তের চওড়াটারী সিঙ্গিমারী এলাকার ৯২৫ নং আন্তর্জাতিক সীমানার মেইন পিলারের পাশে কাটা তারের বেড়া দিয়ে গরু আনার চেষ্টা করলে বিএসএফের একটি টহল দল তাকে লক্ষ্য করে গুলি ছুড়ে। এতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। পরে বিএসএফ জওয়ানরা তার লাশ টেনে হিচরে ভারতের অভ্যন্তরে নিয়ে যায়। নিহত আসাদুল ওই এলাকার আবুল হোসেনের পুত্র। লালমনিরহাট ১৫ বিজিবি’র অধিনায়ক বজলুর রহমান হায়াতী ঘটনাটি শুনেছেন বলে জানিয়েছেন। তবে এ ব্যাপারে বিজিবি’র পক্ষ থেকে কি ধরনের পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে তা জানাতে পারেননি তিনি।

লালমনিরহাটে মাইক্রোবাসের ধাক্কায় শিশুর মৃত্যু

লালমনিরহাট প্রতিনিধি॥ আজ রোববার দুপুরে লালমনিরহাটের বিসিক শিল্পনগরী এলাকার লালমনিরহাট-বুড়িমারী মহাসড়কে মাইক্রোবাসের ধাক্কায় মেঘলা নামের নয় বছরের এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, লালমনিরহাট থেকে বুড়িমারীর উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাওয়া যাত্রীবাহী মাইক্রোবাসের ধাক্কায় সড়ক পারাপারের সময় শিশুটির মৃত্যু হয়। এসময় চালক মাইক্রোবাসটি নিয়ে পালিয়ে যায়। এঘটনায় উত্তেজিত এলাকাবাসী দুই ঘন্টাব্যাপি মহাসড়ক অবরোধ করে। পরে লালমনিরহাট ও আদিতমারী থানা পুলিশের হস্তক্ষেপে পলাতক মাইক্রোবাসকে আটকের শর্তে এলাকাবাসী অবরোধ তুলে নেয়। নিহত শিশুটি আদিতমারী উপজেলার সাপ্টিবাড়ী ইউনিয়নের নায়গরটারী গ্রামের আফিয়ার রহমানের মেয়ে এবং পিটিআই সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দ্বিতীয় শ্রেণির ছাত্রী। পরে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানের উপস্থিতিতে লাশটি স্বজনদের হস্তান্তর করে থানা পুলিশ। আদিতমারী থানার অফিসার ইনচার্জ হরেশ্বর রায় ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

সকল সাম্প্রদায়িক সহিংসতার সাথে আ’লীগ জড়িত -মির্জা ফখরুল

জিন্নাতুল ইসলাম জিন্না, লালমনিরহাট :> ব্রাহ্মনবাড়িয়ার নাসিরনগর ও গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জসহ দেশের সকল সাম্প্রদায়িক সহিংসতার সাথে আ’লীগ নেতাকর্মীরাই জড়িত বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি’র মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। মঙ্গলবার দুপুরে লালমনিরহাটের বড়বাড়ীতে শহীদ আবুল কাশেম ফুটবল ফুর্নামেন্টে অংশ নিতে গিয়ে তিনি এ কথা বলেন। এসময় তিনি আরো বলেন, বর্তমান নির্বাচন কমিশন মেরুদন্ডহীন ও অপদার্থ। এ কমিশনের অধিনে বিএনপি জেলা পরিষদ নির্বাচনে অংশ গ্রহণ করবে কিনা তা দলীয় ফোরামে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। এছাড়াও তিনি বলেন, বর্তমান সরকার সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির কথা বলে যেভাবে অত্যাচার, নির্যাতন,হত্যা চালিয়ে যাচ্ছে, তা গণহত্যার সামিল। আগামী ১৮ নভেম্বর দলীয় চেয়ারপারসন জাতির সামনে এসবের রুপরেখা তুলে ধরবেন বলে জানান তিনি। এসময় কেন্দ্রীয় বিএনপি’র রংপুর বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক আসাদুল হাবিব দুলু, ক্রিড়া বিষয়ক সম্পাদক আমিনুল ইসলাম, নির্বাহী কমিটির সদস্য রেজওয়ানুল হক, নির্বাহী সদস্য ব্যারিষ্টার হাসান রাজিব প্রধান ও লালমরিহাট জেলা বিএনপি’র সম্পাদক হাফিজুর রহমান বাবলাসহ স্থানীয় বিএনপি’র নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

প্রধান সংবাদ


সর্বশেষ সংবাদ

বিলুপ্ত ছিটমহলের ৮ ইউপি’র নির্বাচন অনুষ্ঠিত : আ’লীগ ৬, বিএনপি ১, স্বতন্ত্র ১

লালমনিরহাটে পানিতে ডুবে দুই বোনের মৃত্যু

পাটগ্রামে ট্রাক চাপায় তিনজন নিহত

লালমনিরহাটে বিতর্কের মুখে বঙ্গবন্ধু ছাত্র পরিষদ

একাধিক মামলার ওয়ারেন্টভুক্ত আসামী বুড়িমারী ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী

লালমনিরহাটে এক উঠানেই মসজিদ-মন্দির ধর্মীয় সম্প্রীতির এক অনন্য দৃষ্টান্ত

লালমনিরহাটে পুকুরে ডুবে দুই শিশুর মৃত্যু

লালমনিরহাটে যুবককে পিটিয়ে হত্যা

ভোটাধিকারের সুযোগ পাচ্ছেন লালমনিরহাটের বিলুপ্ত ছিটমহলবাসী


আজকের সব সংবাদ

সম্পাদক : মো. আলম হোসেন
প্রকাশনায় : এ. লতিফ চ্যারিটেবল ফাউন্ডেশন
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়:
সরদার নিকেতন
হাসনাবাদ, দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ, ঢাকা-১৩১১।

ফোন: ০২-৭৪৫১৯৬১
মুঠোফোন: ০১৭৭১৯৬২৩৯৬, ০১৭১৭০৩৪০৯৯
ইমেইল: ekantho24@gmail.com