রবিবার, ১৭ জানুয়ারী ২০২১, ০৮:১৯ পূর্বাহ্ন

বাঘায় রঙিন বাড়ি পাচ্ছেন ১৬ ভূমিহীন পরিবার

বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধি::

সারাজীবন এখানে ওখানে মানুষের জমিতে ছাউনি করে কাটিয়েছেন। ছিলনা বাড়ি করার মতো জায়গা জমি। এবার তারা মুজিববর্ষে পুনর্বাসিত উপকারভোগী। রাজশাহীর বাঘা উপজেলার হেলালপুর গ্রামে তাদের জন্য নির্মাণ করা হচ্ছে সেমি পাঁকা ঘর। উপজেলায় ১৬ জন গৃহহীন-ভূমিহীন পাচ্ছেন সেই বাড়ি।

উপজেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, মুজিববর্ষ উপলক্ষে ভূমিহীন ও গৃহহীনদের জন্য সেমি পাঁকা ঘর নির্মাণ করা হচ্ছে। ২ শতাংশ জমির উপর নির্মিত ৩৯৪ বর্গ ফিটের এই বাড়িটিতে থাকছে দুটি কক্ষ একটি রান্নার জায়গা ও একটি টয়লেট। প্রতিটি বাড়ি নির্মাণে ব্যয় হচ্ছে এক লাখ ৭১ হাজার টাকা। বাড়ি দেওয়ার জন্য উপজেলা টাস্কফোর্স কমিটি উপকারভোগী নির্বাচন করেছে। উপজেলা পর্যায়ে প্রকল্প বাস্তবায়নের জন্য কমিটি করা হয়েছে। উপজেলা নির্বাহি অফিসার (ইউএনও) এই কমিটির সভাপতি ও উপজেলা প্রকল্প বাস্তাবয়ন অফিসার সদস্য সচিব। প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করতে জেলা পর্যায়ে কমিটি রয়েছে। সেই কমিটির সভাপতি হচ্ছেন জেলা প্রশাসক। এই প্রকল্পের আওতায় জেলার বাঘা উপজেলার হেলালপুর গ্রামে ১৬টি বাড়ি নির্মাণ করা হচ্ছে। হেলালপুর গ্রামের মুংলা প্রমানিক ১টি বাড়ি পাচ্ছেন। কথা হলে তিনি বলেন, দীর্ঘদিন মানুষের জমিতে ঘর তুলে থেকেছেন। সেই বাড়িতে থাকার পর তার ঘর ভেঙে নিতে বলেন। পরে আরেকজনের জমিতে বাড়ি করেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার শাহিন রেজা জানান, প্রধান মন্ত্রীর কার্যালয়ের আশ্রয়ণ-২ প্রকল্পের আওতায় ভুমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের জন্য বাসগৃহ নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় উপজেলায় ১৬ জন গৃহহীন-ভূমিহীনকে রঙিন টিনের ছাউনি, সেমি পাকা বাড়ি নির্মাণ করে দেওয়া হচ্ছে। নির্মাণ কাজ প্রায় শেষ করা হয়েছে। জেলা প্রশাসক আব্দুল জলিল বলেন, বাঘা উপজেলাসহ তার জেলায় ৬৯২ জন এই বাড়ি পাবে। আগামি ২০ তারিখে প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা একযোগে দেশে নির্মাণাধীন সব বাড়ি উদ্ভোধন করবেন।

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020  E-Kantha24
Technical Helped by Titans It Solution